কুমিল্লা
শুক্রবার,২৭ নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
১২ অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ | ১১ রবিউস-সানি, ১৪৪২

কুমিল্লার ৬ আসনে দু’দলেই একই পরিবারের একাধিক মনোনয়ন প্রত্যাশী

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে কুমিল্লার ১১টি সংসদীয় আসনের মধ্যে অধিকাংশ আসনেই আওয়ামী লীগ ও বিএনপি থেকে মনোনয়ন পেতে কোনো আসনে স্বামী-স্ত্রী-সন্তান, কোথায়ও আবার বাবা-ছেলে, আবার কোনো আসনে ভাই-বোন দলীয় মনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছেন।

এ নিয়ে দলীয় ফোরামে চলছে নানা আলোচনা। একই পরিবার থেকে একাধিক ব্যক্তির মনোনয়ন ফরম জমা দেয়ার রাজনৈতিক নানা কৌশল রয়েছে- এমনটাই অভিমত দলের সিনিয়র নেতাদের। চূড়ান্ত যাচাই-বাছাইয়ে ক্রটি কিংবা আইনগত অন্য কোনো জটিলতায় কারও মনোনয়নপত্র বাতিল হলে বিকল্প প্রার্থীকেই ভোটের মাঠে নিয়ে আসা, কিংবা নির্বাচনের আগে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার না করিয়েও নাম মাত্র ভোটের মাঠে রেখে ভোটের দিন প্রার্থী হিসেবে সুযোগ-সুবিধার লুফে নেয়ার কৌশল হিসেবেও একই পরিবারে প্রকাধিক প্রার্থী রাখা হতে পারে বলে দলীয় নেতৃবৃন্দ জানিয়েছেন। তবে এ জন্য মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন ২৮ নভেম্বর ও প্রত্যাহারের শেষ দিন ৯ ডিসেম্বর পর্যন্ত অপেক্ষায় থাকতে হবে।

মনোনয়ন প্রত্যাশী ও দলীয় সূত্রে জানা যায়, জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কুমিল্লার ১১টি সংসদীয় আসনে এ বছরই সর্বাাধিক সংখ্যক মনোনয়ন প্রত্যাশী রয়েছেন। আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি ও অন্যান্য দল মিলে প্রায় ২ শতাধিক প্রার্থী মনোনয়ন চাচ্ছেন। এদিকে এ বছরই প্রথম সর্বাধিক সংখ্যক আসনে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের তালিকায় স্বামী-স্ত্রী-সন্তান, ভাই-বোন ও বাবা-ছেলে রয়েছেন।

অতীতে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কোনো কোনো সংসদীয় আসনে প্রার্থীদের ছড়াছড়ি থাকলেও এ বছরই বিভিন্ন আসনে একই পরিবার থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের তালিকা বেশ দীর্ঘ। তবে দলীয় প্রতীক পাওয়ার পর কিংবা নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার কর্তৃক চূড়ান্তভাবে মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষিত হওয়ার পর অনেকেই পরিবারের পছন্দের প্রার্থীকে সমর্থন দিয়ে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নিতে পারেন- এমন গুঞ্জন রয়েছে দলীয় ফোরামে।

কুমিল্লা-১ (মেঘনা-দাউদকান্দি) আসনে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের তালিকায় রয়েছেন বাবা-ছেলে। আওয়ামী লীগ থেকে বর্তমান সংসদ সদস্য মেজর জেনারেল (অব.) সুবিদ আলী ভূঁইয়া ও তার ছেলে দাউদকান্দি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মেজর (অব.) মোহাম্মদ আলী সুমন। বিএনপি থেকে দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন এবং তার ছেলে কেন্দ্রীয় বিএনপি সদস্য নেতা ড. খন্দকার মারুফ হোসেন দলীয় মনোনয়ন চেয়েছেন।

কুমিল্লা-৩ (মুরাদনগর) আসনে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের তালিকায় রয়েছেন বাবা-ছেলে, ৩ সহোদর এবং স্বামী-স্ত্রী। এর মধ্যে আওয়ামী লীগ থেকে কুমিল্লা উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম সরকার ও তার ছেলে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা এবং দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র পদে নির্বাচনে অংশ নেয়া ড.আহসানুল আলম কিশোর এবং বিএনপি থেকে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান সাবেক এমপি কাজী শাহ মোফাজ্জাল হোসাইন কায়কোবাদ, তার অপর ২ সহোদর কেএম মুজিবুল হক ও জুন্নন বসরী এবং বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়া এবং তার সহধর্মিণী অধ্যাপিকা সাদিয়া রফিক।

কুমিল্লা-৪ (দেবিদ্বার) আসনে বিএনপি থেকে প্রার্থী হয়েছেন স্বামী-স্ত্রী এবং ছেলে। কুমিল্লা উত্তর জেলা বিএনপি’র সভাপতি ও সাবেক সাংসদ আলহাজ ইঞ্জিনিয়ার মঞ্জুরুল আহসান মুন্সি, তার স্ত্রী কুমিল্লা (উত্তর) জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি বেগম মাজেদা আহসান মুন্সি ও তাদের ছেলে কুমিল্লা উত্তর জেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার রিজবিউল আহসান মুন্সি দলীয় মনোনয়ন চেয়েছেন।

কুমিল্লা-৫ (বুড়িচং-ব্রাহ্মণপাড়া) আসনে বিএনপি থেকে মনোনয়ন প্রত্যাশীর তালিকায় রয়েছেন স্বামী-স্ত্রী। বুড়িচং উপজেলা বিএনপির সভাপতি ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এটিএম মিজানুর রহমান ও তার স্ত্রী বুড়িচং উপজেলা বিএনপির সদস্য খাদিজা রহমান দোলা মনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছেন।

কুমিল্লা-৬ (আদর্শ সদর) আসনে মনোনয়ন প্রত্যাশীর তালিকায় রয়েছেন ভাই-বোন। আওয়ামী লীগ থেকে প্রবীণ আওয়ামী লীগ নেতা অ্যাডভোকেট আফজল খানের ছেলে এফবিসিসিআইর পরিচালক মাসুদ পারভেজ খান ইমরান এবং আফজল কন্যা ও কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশনের সাবেক প্যানেল মেয়র এবং কুমিল্লা মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আঞ্জুম সুলতানা সীমা।

একই দলে এবং একই আসনে একাধিক প্রার্থী কিংবা একই পরিবার থেকে একাধিক ব্যক্তি প্রার্থী হওয়ার বিষয়ে বৃহস্পতিবার দুপুরে কুমিল্লা উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম সরকার জানান, আওয়ামী লীগ অনেক বড় দল। এ দল থেকে একই পরিবার কিংবা আরও অনেকেই মনোনয়ন প্রত্যাশা করতেই পারেন। তবে নৌকা প্রতীক যাকে দেয়া হবে আমরা সবাই ঐক্যবব্ধ থেকে নৌকার বিজয়ের লক্ষে কাজ করবো।

অপর দিকে বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মোস্তাক মিয়া বলেন, কুমিল্লার সবকটি আসনেই দলের একাধিক নেতা কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে দলীয় মনোনয়ন চেয়ে ফরম জমা দিচ্ছেন। এটা আমাদের রাজনৈতিক কৌশল। আমিও বৃহস্পতিবার (১৫ নভেম্বর) রমনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছি। তবে দল যাকে ধানের শীষ প্রতীক (মনোনয়ন) দিবে, তাকেই আমরা সমর্থন জানিয়ে এক সঙ্গে কাজ করবো।

আরও পড়ুন