কুমিল্লা
শনিবার,২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
১৪ ফাল্গুন, ১৪২৭ | ১৪ রজব, ১৪৪২

লাকসামে দুর্নীতি বিরোধী ও রোকেয়া দিবস পালিত

লাকসামে আন্তর্জাতিক দুর্নীতি বিরোধী দিবস-২০১৮ উপলক্ষে উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির (দুপ্রক) উদ্যোগে দুর্নীতি বিরোধী র‌্যালি, মানববন্ধন ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রবিবার (৯ ডিসেম্বর) লাকসাম উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, লাকসাম উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এডভোকেট মো. ইউনূস ভূঁইয়া।

উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির (দুপ্রক) সভাপতি মুজিবুর রহমান দুলালের সভাপতিত্বে সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইএনও) একেএম সাইফুল আলম, সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোঃ ইসমাইল হোসেন, লাকসাম থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মনোজ কুমার দে, লাকসাম উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রাশিদা বেগম, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা প্রসাদ কুমার ভাওয়াল, মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমান্ডার মোঃ আমিন উল্লাহ, নবাব ফয়জুন্নেছা ও বদরুন্নেসা যুক্ত উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ কামাল হোসেন হেলাল, দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সহ-সভাপতি সৈয়দ ওমর আহাম্মদ।

এ সময় মুক্তিযোদ্ধা, শিক্ষক, সাংবাদিক, সততা সংঘ, নারি সংগঠনসহ বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন, উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির (দুপ্রক) সাধারণ সম্পাদক আরঙ্গজেব খাঁন রুবেল। আলোচনা সভা পূর্বে লাকসাম উপজেলা পরিষদ চত্ত¡র থেকে দুর্নীতি বিরোধী একটি র‌্যালি বের করা হয় এবং মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে এডভোকেট মো. ইউনূস ভূঁইয়া বলেন, দুর্নীতির কারণে ব্যক্তি, পরিবার, গোষ্ঠী, সংস্থা, প্রতিষ্ঠান, সমাজ ও রাষ্ট্র মারাত্মক ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়। দুর্নীতি মানবকল্যানকে বাধাগ্রস্ত করে। এ জন্য দুর্নীতি প্রতিরোধে গণসচেতনতা ও গণজাগরণ সৃষ্টি করা একান্ত প্রয়োজন। তিনি আরো বলেন, দুর্নীতিমুক্ত দেশ গড়তে হলে প্রত্যেক নাগরিককে এই মাতৃভূমির প্রতি মমত্ববোধ থাকতে হবে। সে লক্ষ্যে তিনি সকলকে এগিয়ে এসে স্ব-স্ব ক্ষেত্রে আন্তরিকতার সঙ্গে কাজ করার আহবান জানান।

অপরদিকে, একই দিন দুপুরে আন্তর্জাতিক নারি নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বেগম রোকেয়া দিবস-২০১৮ উপলক্ষে ‘জয়িতা অন্বেষনে বাংলাদেশ’ কার্যক্রমের আওতায় বিভিন্ন ক্যাটাগরীতে উপজেলা প্রশাসন ৫ জন জয়িতাকে সংবর্ধনা ও পুরস্কার প্রদান করে। জয়িতারা হলেন, জেরিন আক্তার (নারি উদ্যেক্তা), নুরজাহান বেগম (শিক্ষা ও চাকুরি), মর্জিনা বেগম (সফল জননী), শাহানারা বেগম (নতুন উদ্যোমে জীবন গড়া) এবং হনুফা বেগম (ধাত্রী)।

আরও পড়ুন