কুমিল্লা
শুক্রবার,৪ ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
১৯ অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ | ১৮ রবিউস-সানি, ১৪৪২

মনোহরগঞ্জে শিক্ষা ও যোগাযোগ অবকাঠামো খাতে বিপুল উন্নয়ন

কুমিল্লার মনোহরগঞ্জ উপজেলার মতো ইউনিয়নেও দৃশ্যমান হয়েছে উন্নয়ন কর্মকান্ড। উপজেলার ০৩ নং হাসনাবাদ ইউনিয়নে পাকা রাস্তার সম্প্রসারণ, বিদ্যুতায়ন, বাজার অবকাঠামো উন্নয়ন, হতদরিদ্রের আবাসন ও অর্থনৈতিক সহযোগিতা দানে সন্তোষ প্রকাশ করেছে ইউনিয়নবাসী। ইউনিয়নের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে লেগেছে উন্নয়নের ছোঁয়া। সরকারি সহযোগিতা ছাড়াও নিজস্ব অর্থায়নে নির্মিত হয়েছে একাধিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। শিগগিরই হাসনাবাদ ইউনিয়নকে শতভাগ বিদ্যুতায়ন ঘোষণা করা হবে জানা গেছে।

কুমিল্লা-৯ (লাকসাম-মনোহরগঞ্জ) আসন থেকে বার বার নির্বাচিত সংসদ সদস্য ও দক্ষিণ জেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি মোঃ তাজুল ইসলাম এমপির আন্তরিকতায় ওই ইউনিয়নের উন্নয়ন কর্মকান্ড হয়েছে। তিনি বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি এবং পরিকল্পনা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সদস্য। হাসনাবাদ ইউনিয়ন পরিষদ সূত্রে জানা যায়, বর্তমান সরকারের আমলে ইউনিয়নের অধিকাংশ উন্নয়ন কর্মকান্ড এরই মধ্যে শেষ হয়ে গেছে। চলমান কিছু উন্নয়ন কর্মকান্ড এখন সমাপ্তির পথে। ইউনিয়নে কর্মসৃৃজন প্রকল্পের আওতায় ৪০ দিনের কর্মসূচীর কাজ ৯টি ওয়ার্ডের মধ্যে সমাপ্তি হয়েছে।

আরও পড়ুন:  এক ক্লিকে একাদশ নির্বাচনের কুমিল্লা জেলার সব খবর

এদিকে ইউনিয়ন পরিষদ থেকে ৯৯ জনকে প্রতিবন্ধীভাতা, ৫২৪ জনকে বয়স্কভাতা, ১৮৪ জনকে বিধবাভাতা, ১৩৭ জনকে ভিজিডি, ১০ টাকা কেজিতে চাল বিতরণসহ বহু কর্মকান্ড পরিচালনা করা হচ্ছে। ইউনিয়নের বিদ্যালয়গুলো ঘুরে দেখা গেছে আলীনকিপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে ২টি ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। কাশই সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নতুন ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। নরপাইয়া সরকারিপ্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। বাদুয়াড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দ্বিতল ভবন নির্মাণ করা হয়েছে।

আলীনকিপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। আশিয়াদারি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে একটি নতুন ভবন ও একটি সাইক্লোন শেল্টার নির্মাণ করা হয়েছে। আলীনকিপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে শেখ রাসেল ডিজিটাল কম্পিউটার ল্যাব করা হয়েছে।

এছাড়াও কুমিল্লা জেলা পরিষদ থেকে অত্র ইউনিয়নের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে উন্নয়ন বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে।এদিকে ইউনিয়নের হাসনাবাদ-মোহাম্মদপুর সড়ক, বাদুয়াড়া গ্রামের ভিতরে নতুন সড়ক, নরপাইয়া গ্রামের ভিতরে নতুন সড়ক, তালতলা থেকে কাদ্রা সড়ক, আশিয়াদারি গ্রামের ভিতরে দুটি নতুন সড়ক, মানরা গ্রামের ভিতরে নতুন সড়ক, সাতগরিয়া গ্রামের ভিতরে নতুন সড়ক, নাওতলা থেকে বাদুয়াড়া গ্রামের ভিতরে পাকা রাস্তা নির্মাণ, হাসনাবাদ থেকে বাইশগাঁও সড়ক মনিপুর আনন্দ মার্কেট থেকে কমলপুর পর্যন্ত রাস্তা পাকাকরণ করা হয়েছে। এছাড়াও তালতলা ঈদগাহের রাস্তা পাকাকরণ, শ্রীপুর-কমলপুর গ্রামের ভিতরে নতুন পাকা রাস্তা ও নাওতলা-নিশাচরা গ্রামের ভিতরে নতুন পাকা রাস্তা নির্মাণ করা হবে।

হাসনাবাদ ইউনিয়নের বিভিন্ন বাজারসহ বিভিন্ন রাস্তার মোড়ে মোড়ে ল্যাম্পপোস্ট বসানো হয়েছে। অত্র ইউনিয়নে অসংখ্য নতুন মাটির রাস্তা ও অসংখ্য রাস্তা ইটের সলিং করা হয়েছে। মনিপুর ও তালতলা গ্রামে ২টি কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপন করা হয়েছে। বাদুয়াড়া, নরপাইয়া, হাসনাবাদ মাদ্রাসা সংলগ্ন খালের উপর, জিনারাগ, নেয়ামতপুর, সাতঘরিয়া, হাসনাবাদ, আশিয়াদারি ভূঁইয়া বাড়ি সংলগ্ন খালের উপর মোট ৯টি নতুন ব্রিজ নির্মাণ করা হয়েছে।

হাসনাবাদ বাজার উন্নয়নের জন্য বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে এবং হাসনাবাদ বাজার ব্যবসায়ীদের জন্য কয়েকটি শেড নির্মাণ করা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গৃহনির্মাণ প্রকল্পের আওতায় অসহায়দের জন্য সরসপুর ইউনিয়নের ৯টি ওয়ার্ডে মোট ১৮টি বসত ঘর নির্মাণ করা হচ্ছে। হাসনাবাদ ইউনিয়নে বিভিন্ন মসজিদ ও মাদ্রাসা উন্নয়নের জন্য বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। হিন্দু সম্প্রদায়ের জন্য বিভিন্ন বরাদ্দ দেওয়া হচ্ছে।

হাসনাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ কামাল হোসেন বলেন, ইউনিয়নের উন্নয়নে আমাদের এমপি মোঃ তাজুল ইসলাম সব সময়ই আন্তরিক।দীর্ঘদিন থেকে তিনি আমাদের এমপি। আগামীতে তিনি এমপি থাকলে আমাদের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত থাকবে। এসময় ইউনিয়নের বিভিন্ন উন্নয়ন কর্মকান্ড বাস্তবায়ন হওয়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও মোঃ তাজুল ইসলামকে ধন্যবাদ জানিয়ে দীর্ঘায়ু ও সুস্থ্যতা কামনা করেন হাসনাবাদ ইউনিয়নের জনগণ।

আরও পড়ুন