কুমিল্লা
সোমবার,২৮ নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
১৩ অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ | ৩ জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৪
শিরোনাম:
কুমিল্লায় ৭১১ রোগীকে বিনামূল্যে চিকিৎসা দিলেন ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশন ইসলামী ব্যাংকের ফাস্ট এ্যসিসস্ট্যান্ট ভাইস প্রেসিডেন্ট পদে নাজমুলের পদোন্নতি লাভ ‘গ্লোবাল ইয়ুথ লিডারশিপ’ অ্যাওয়ার্ড পেলেন তাহসিন বাহার কুমিল্লার সাবেক জেলা প্রশাসক নূর উর নবী চৌধুরীর ইন্তেকাল কাউন্সিলর প্রার্থী কিবরিয়ার বিরুদ্ধে অস্ত্র সরবরাহের অভিযোগ লাকসামে বঙ্গবন্ধু ফুটবল গোল্ডকাপে পৌরসভা দল বিজয়ী কুসিক নির্বাচন: এক মেয়রপ্রার্থীসহ ১৩ জনের মনোনয়ন প্রত্যাহার কুসিক নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ালেন বিদ্রোহী প্রার্থী ইমরান স্বাস্থ্য সচেতনতার লক্ষ্যে কুমিল্লায় ঢাকা আহছানিয়া মিশনের মেলার আয়োজন কুসিকে মেয়র প্রার্থী রিফাতের নির্বাচন পরিচালনায় ৪১ সদস্যের কমিটি

কুমিল্লায় ১৩ দিনেও সন্ধান মেলেনি মুক্তিযোদ্ধা রফিকের

মুক্তিযোদ্ধা রফিকুল ইসলাম / ফাইল ছবি

কুমিল্লায় নিখোঁজের ১৩ দিনেও সন্ধান মেলেনি মুক্তিযোদ্ধা মো. রফিকুল ইসলামের (৬৫)। এ ঘটনায় তার স্ত্রী নাজমা আক্তার থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেছেন। নিখোঁজ মুক্তিযোদ্ধা মো. রফিকুল ইসলাম উপজেলার শ্রীমন্তপুর বাজারে মুদি মালের ব্যবসা করতেন।

পরিবার ও স্থানীয় সূত্র জানায়, গত ১২ ফেব্রুয়ারি সকালে মুক্তিযোদ্ধা রফিকুল ইসলাম চান্দিনা বাজারের উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হন। রাতেও বাড়িতে ফিরে না আসায় সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজাখুজি করে তার সন্ধান পাওয়া যায়নি স্বজনরা। এ ঘটনায় ১৭ ফেব্রুয়ারি চান্দিনা থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন স্ত্রী নাজমা আক্তার। সোমবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) নিখোঁজের ১৩ দিন পেরিয়ে গেলেও পুলিশ কিংবা স্বজনরা কোনপ্রকার সন্ধান পায়নি তার।

এ ঘটনার পর থেকে মুক্তিযোদ্ধা স্বামীর সন্ধান চেয়ে জাতীয় ও স্থানীয় পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি সহ এলাকায় পোস্টার ও মাইকিং অব্যাহত রেখেন নাজমা আক্তার।

এ বিষয়ে স্ত্রী নাজমা আক্তার নতুন কুমিল্লাকে জানান, রফিকুল ইসলাম ১২ ফেব্রুয়ারি সকালে চান্দিনা বাজারের উদ্দেশ্যে বাসা থেকে বের হয়। ওই দিন রাতেও বাসায় ফিরেনি তিনি। এর পর থেকে স্বজনদের বাড়িসহ সম্ভাব্য সকল স্থানে খোঁজা এবং পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি সহ এলাকায় পোস্টার ও মাইকিং অব্যাহত রেখেও সন্ধান মিলছেনা।

চান্দিনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আবুল ফয়সল নতুন কুমিল্লাকে জানান, মুক্তিযোদ্ধা নিখোঁজ ডায়েরি করার পর থেকে প্রযুক্তি ব্যবহার করে সন্ধান চালিয়ে যাচ্ছে পুলিশ।

আরও পড়ুন