কুমিল্লা
সোমবার,২৪ জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
১০ মাঘ, ১৪২৮ | ২০ জমাদিউস সানি, ১৪৪৩

কুমিল্লায় এক সন্তানের জননিকে ধর্ষণের অভিযোগ

প্রতীকী ছবি

কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে সন্তানের জননিকে ধর্ষণ করার অভিযোগ উঠেছে নুরুজ্জামান রাজু নামের এক লম্পটের বিরুদ্ধে। সে ওই গ্রামের আব্দুল লতিফের ছেলে।

বৃহস্পতিবার (১১ এপ্রিল) রাতে উপজেলার আদ্রা উত্তর ইউপির মেরকট গ্রামের উত্তর পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় শুক্রবার (১২ এপ্রিল) দুপুরে ধর্ষিতার পিতা বাদী হয়ে নাঙ্গলকোট থানায় দু’জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন।

স্থানীয় সূত্র জানায়, লম্পট নুরুজ্জামান বৃহস্পতিবার রাত ১২টায় ধর্ষিতার ঘরে প্রবেশ করে ধর্ষিতার গলা চেপে ধরে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। ধর্ষিতা চিৎকারে স্থানীয় লোকজন এগিয়ে আসতে দেখে লম্পট নুরুজ্জামান পুকুরে ঝাঁপ দেয়ে পালাতে চেষ্টা করে। পরে এলাকাবাসি তাকে আটক করে একটি ঘরে তালা বন্ধ করে রাখলে এক পর্যায়ে সে পালিয়ে যায়। এ ঘটনার পর থেকে লম্পট নুরুজ্জামানের পরিবারের অন্যান্য সদস্যরাও ঘরে তালা বন্ধ করে আত্মগোপনে ছলে যায়।

এ বিষয়ে আদ্রা ইউপির মেম্বার জহিরুল ইসলাম গাজী নতুন কুমিল্লাকে বলেন, রাতে খবর পেয়ে আমি ওখানে যাই। এলাকাবাসীর সহযোগিতায় লম্পট নুরুজ্জামানকে আটক করে জীবন কৃষ্ণ বাবুর মাছের খামারের একটি ঘরে তালা মেরে ধর্ষিণতার পরিবারকে খবর পাঠাতে গেলে ওই সুযোগে লম্পট নুরুজ্জামান জানালা ভেঙে পালিয়ে যায়। পরে লোকজন নিয়ে তার বাড়ীতে গিয়ে দেখি তালা বন্ধ করে বাড়ীর সবাই পালিয়ে যায়।

এ বিষয়ে ধর্ষিতার পিতা নতুন কুমিল্লাকে জানান, আমি ঘটনার দিন রাতে পৌর এলাকার বেতাগাঁও গ্রামের আত্মীয়ের বাড়িতে বেড়াতে যাই। খবর শুনে রাত ২টায় বাড়িতে গিয়ে এ ঘটনাটি জানতে পারি। আমি প্রশাসনের নিকট এ ঘটনার সঠিক তদন্ত করে আসামীদরে আইনের আওয়াতায় এনে বিচারের দাবি জানাই।

এ ব্যাপারে নাঙ্গলকোট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নজরুল ইসলাম নতুন কুমিল্লাকে বলেন, এ ঘটনায় থানায় মামলা করা হয়েছে। আসামীদের গ্রেফতারে চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

আরও পড়ুন