কুমিল্লা
সোমবার,২১ অক্টোবর, ২০১৯ খ্রিস্টাব্দ
৬ কার্তিক, ১৪২৬ | ২০ সফর, ১৪৪১
Bengali Bengali English English

বাংলাদেশকে সুইজারল্যান্ডের মতো করতে চাই: স্থানীয় সরকারমন্ত্রী

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায়মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম বলেছেন, ‘আমরা বাংলাদেশকে সুইজারল্যান্ডের মতো করে গড়ে তুলতে চাই। আমাদের সবকিছু আছে, তাহলে কেন পারব না আমরা?’

বুধবার (২৪ জুলাই) রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে অবস্থিত বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) দুইদিনব্যাপী ‘গুড প্রজেক্ট ইমপ্লেমেন্টেশন’ ফোরামের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানের আয়োজন করে এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক (এডিবি)।

মন্ত্রী আরও বলেন, ‘আমারা আমাদের এই দেশকে উন্নয়নশীল দেশের মর্যাদায় নিয়ে এসেছি। আমরা বাংলাদেশকে সুইজারল্যান্ডের মতো করতে চাই। আমরা কেন আমাদের দেশকে তাদের মতো করতে পারব না? আমাদের এখন সবকিছু আছে। আমাদের অনেক জনগণ আছে, তারা কঠোর পরিশ্রম করেন। সুতরাং আমরা কেন করতে পারব না?’

সরকারমন্ত্রী তাজুল ইসলাম বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুকে হারানোর অনেক সময় পর আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আসেন। ওই সময় আমরা দরিদ্র সীমার নিচে বসবাস করছিলাম। আমারা খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণ ছিলাম না। ভালো শিক্ষা ব্যবস্থা ছিল না, পর্যাপ্ত স্বাস্থ্য সেবা ছিল না, একই সঙ্গে সকল মৌলিক চাহিদাগুলো অনুপস্থিত ছিল।

কিন্তু আমাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আসার পর এগুলো নিরসনের জন্য একটি রোড ম্যাপ তৈরি করেন। সে অনুযায়ী কাজ করেই আমরা উন্নয়নশীল দেশের কাতারে প্রবেশ করতে পেরেছি।’

মন্ত্রী আরও বলেন, ‘আমাদের দারিদ্র্যতা, বৈষম্যতা আছে, এর পাশাপাশি আর্থসামাজিক সংকটও আছে। আছে নদী-নালা দূষণও, তারপরও আমরা এগিয়ে যাচ্ছি।’

অনুষ্ঠানে এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংকের (এডিবি) কান্ট্রি ডিরেক্টর মনমোহন পারকাশ বলেন, ‘বাংলাদেশ এশিয়া-প্যাসিফিক অঞ্চলে দ্রুত প্রবৃদ্ধি অর্জনের দেশ হচ্ছে। বর্তমানে বিশ্ব-অর্থনীতিতে প্রবৃদ্ধি অর্জন অনেক চ্যালেঞ্জিং, কিন্তু তারপরও বিগত অর্থবছরে বাংলাদেশ ৮ শতাংশের ওপরে প্রবৃদ্ধি অর্জন করেছে। এক্ষেত্রে বাংলাদেশ এখন গোটা বিশ্বে মডেল।’

তিনি বলেন, ‘বর্তমানে বাংলাদেশে মাথাপিছু আয় এক হাজার ৯০৯ ডলার। অথচ ১৯৭২ সালে ছিল মাত্র ৩১৮ ডলার। বাংলাদেশ নানা ক্ষেত্রে সফলতা পাচ্ছে। অর্থনীতির অনেক ক্ষেত্রে চালকের আসনেও রয়েছে বাংলাদেশ। এরমধ্যে তৈরি পোশাক রফতানিতে বাংলাদেশ দ্বিতীয়, সবজি রফতানিতে তৃতীয়, ধান উৎপাদনে চতুর্থ আর আম উৎপাদনে সপ্তম স্থানে রয়েছে।’

আরও পড়ুন